1. admin@spicynews24.com : admin :
  2. nfjsduwdwdyu@gmail.com : mk tr : mk tr
মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশীকে খু;ন করে মাটি চাপা দিয়ে দিলো আরেক বাংলাদেশী -
শিরোনাম
অনেক প্রবাসী পাসপোর্ট নিয়ে অবহেলা করেন। অথচ এই পাসপোর্ট ছাড়া তার…. হাত জোর করে কি বলছেন সানি লিওন? তুমি আমার এমন একটি অংশ স্পর্শ করেছো যা এখন পর্যন্ত আর কেউ পারেনি : প্রভা দীপিকা এমনভাবে অনুরোধ করেছিলো না করতে পারিনি: তাহসান স্বামীর সঙ্গে পরকীয়া, তরুণীকে প্রকাশ্যে জুতাপেটা স্ত্রীর অবশেষে মণ্ডপে পবিত্র কোরআন রাখা ব্যক্তির নাম পরিচয় জানা গেল সৌদি আরবে পৌঁছার ২ ঘণ্টা পরেই সাইদুর রহমানের মৃ’ত্যু সৌদির জেদ্দায় অবস্থানরত প্রবাসীদের জন্য জরুরী খবর আটকে গেলো মালয়েশিয়ায় নতুন নিয়মে শ্রমিক নেওয়া ডাস্টবিনে কুড়িয়ে পাওয়া মেয়েটি তার সবজি বিক্রেতা বাবাকে এতো বড় প্রতিদান দিল

মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশীকে খু;ন করে মাটি চাপা দিয়ে দিলো আরেক বাংলাদেশী

  • আপডেটঃ শনিবার, ২১ আগস্ট, ২০২১
  • ৪ বার পঠিত

 

মালয়েশিয়ায় নিজ গ্রামের প্রতিবেশী যুবক মোশাররফ হোসেন (২৮) কে কু;পিয়ে খু;ন করে তাদেরই নিজ ঘরের রুমের টয়লেটে পুতে ঢালাই করে রাখলো তারই প্রতিবেশী যুবক মোঃ টুটুল মিয়া (২৫)। তাকে খুন করা হয় গত জুলাইয়ের ১২ তারিখ রাত ১ টায় সেরেমবান এলাকায় পরে হ;ত্যার রহস্য উদঘাটিত হয় ২২ জুলাই।

টুটুল মিয়া মোশারফকে নি;র্মমভাবে খু;ন করার দায়ে গ্রেফতার হয়ে বর্তমানে মালয়েশিয়ার জেলে বন্দী আছে। খু;ন হওয়া মোশাররফ হোসেন ও খুনী টুটুল মিয়া এই দুজনের বাড়ী একই এলাকা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বাঞ্চারামপুর থানার মরিচাকান্দী ইউনিয়নের শান্তিপুর গ্রামে।

গতকাল শুক্রবার দিনগত রাত ১১ টার ফ্লাইটে কুয়ালালামপুর থেকে মোশাররফ হোসেন এর মরদেহ শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছে আজ ভোররাতে। শনিবার (২১ আগস্ট) সকাল ভোরে পরিবারের সদস্যরা লা;শ বিমান বন্দর থেকে রিসিভ করে তারপর শান্তিপুর গ্রামের বাড়িতে সকাল ১০ টায় দাফন সম্পন্ন হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন মোশাররফ এর প্রতিবেশী স্থানীয় কমিউনিটির নেতা মো. শামীম আহমেদ।

এসময় শান্তিপুর পুরো গ্রামটি শোক ও আহাজারিতে ক্ষনিকের জন্য অশান্ত হয়ে যায়। মোশাররফ এর লা;শ দেশে ফেরত আনতে নিহ;তের পরিবারের সদস্যরা অনুরোধ করেন মালয়েশিয়া কুয়ালালামপুরে থাকা কমিউনিটির নেতা জহিরুল ইসলাম জহির কে। তখন জহিরুল ইসলাম নিহত মোশাররফ এর মরদেহ বাংলাদেশে ফেরত পাঠানোর জন্য কোম্পানির মালিক, থানা পুলিশ, লাশ প্রেরণকারী এজেন্ট ও দূতাবাসের সাথে যোগাযোগ করে যাবতীয় তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ করতে সহযোগিতা করেন।

জহিরুল ইসলাম জহির প্রতিবেদককে বলেন, আমি প্রাথমিক ভাবে যতটুকু তদন্ত করে জানতে পারলাম সেটা হলো প্রতিবেশীদের মাধ্যমে, মোশাররফ ও টুটুল এর বাড়ি একই গ্রাম শান্তি পুর গ্রামে। সেই সুবাদে তারা একসাথে কাজ করতো এবং একই রুমে বসবাস করতো। গত জুলাই মাসের ১২ তারিখে তারা দূজনেই বেতন পায়। বেতন পেয়ে টুটুল মোশাররফ এর কাছে টাকা ধার চায় টাকা না দেওয়ায় দুজনের মধ্যে ঝগড়া হয়।

তারপর এই দিন রাত ১ টায় মোশাররফ কে খু;ন করে টয়লেটের মেঝে ৩ ফুট গর্ত করে লাশ পুতে তার উপর সিমেন্ট দিয়ে ঢালাই করে রাখে। এদিকে মোশাররফ এর মালিক কাজে অনুপস্থিত দেখে হন্যে হয়ে খুজছে কিন্তু মোশাররফ এর কোন হদিস নেই। টুটুল বলছে মোশাররফ অন্য কোথাও কাজে চলে গেছে। কিন্তু মোশাররফ এর কথাবার্তায় মালিকের সন্দেহ হয়। তখন মালিক ২ জন বাংলাদেশী কে পাঠায় মোশাররফ এর রুমে থাকার জন্য।

পরে ১ সপ্তাহ পর ২২ জুলাই ঘরের মেঝ থেকে দূগন্ধ আসায় টুটু্ল কে ধরে জিজ্ঞাসা করে সে প্রথমে অস্বীকার করে। তখন তাকে মা;রধ;র করার পর টুটুল পুলিশের কাছে স্বীকার করে মোশাররফ কে সে খু;ন করে মাটিতে পুতে রেখেছে। মোশাররফ হোসেন এর স্ত্রী এক কন্যা সন্তান ও এক ছেলে সন্তান রয়েছে। মোশরফ হেসেন ২০১৩ সালে কলিং ভিসায় চাকুরী নিয়ে মালয়েশিয়া আসেন।

পরবর্তীতে দালালের প্রতারনার কারনে তিনি আর বৈধ হতে পারেননি। মোশাররফ এর পরিবারের পক্ষ থেকে তার হ;ত্যার বিচার ও পরিবারকে আর্থিক সহযোগিতার জন্য প্রধনামন্ত্রীর সাহায্য কামনা করেছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরও খবর পড়ুন
© 2021 | All rights reserved by Spicy News
Customized BY Spicy News