Sun. Dec 5th, 2021

 

এশিয়ার সর্ববৃহৎ শ্রমবাজার মালয়েশিয়ায় নতুন করে বাংলাদেশসহ তিনটি দেশের জন্য সিকিউরিটি গার্ডের চাকরির সুযোগ দিতে পরিক’ল্পনা করছে। মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশিরা বিভিন্ন ধরনের কাজের সাথে জ’ড়িত থাকলেও সিকিউরিটি গার্ডের চাকরির সুযোগ ছিল এক মাত্র নেপালের হাতে।

কিন্তু দেশটির সরকার নিরাপ’ত্তা সেবা খাতে শূন্যপদ পূরণের জন্য বাংলাদেশ, ইন্দোনেশিয়া এবং ফিলিপাইনকে নতুন সো’র্স কান্ট্রি দেশ হিসেবে দেখার পরিকল্পনা করছে।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) নিরাপত্তা পরিষেবা শিল্প এবং বেসরকারি সংস্থাগুলির সাথে বৈঠকের পর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হামজাহ জয়নুদিন বলেন, নিরাপত্তা খাতে (সিকিউরিটি) নতুন সোর্স কান্ট্রি বিষয়ে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অবশ্যই বিষয়টি অধ্যয়ন করা হবে এবং ভবিষ্যতে যাতে কোনও সমস্যা না হয়, তা নিশ্চিত করতে স্টেকহোল্ডারদের সাথে আলোচনা করা হবে।

তিনি আরো বলেন, আমি শিল্প, সরকারী পররাষ্ট্র ও প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সহ সংশ্লিষ্ট পক্ষের সাথে অধিবেশনের পরে এটি ঘোষণা করব। আরও মন্ত’ব্য করে, হামজাহ বলেছেন যে, এটি নিশ্চিত করার জন্য যে, দেশটিতে যাদের আ’না হয়েছে তারা মালয়েশিয়ায় কাজ করার জন্য এবং অন্য উদ্দেশ্যে নয়।

কারণ হিসেবে তিনি বলেন, এর সাথে জাতীয় নিরাপ’ত্তা জ’ড়িত এবং আমি এই ইস্যুতে খুবই সংবেদনশীল। হামজাহ প্রকাশ করেছেন যে নিরাপত্তা স্ক্রীনিংয়ের অভাব, আ’গ্নেয়া’স্ত্রের অপ’ব্যবহার এবং অ’বৈধ অভিবাসীদের নিয়োগের কারণে ২০১৪ সাল থেকে মোট ৬৬টি নিরাপ’ত্তা এজেন্সির লাইসেন্স বা’তিল করা হয়েছে। তিনি সুরক্ষা এজেন্সিকে তাদের বি’রু’দ্ধে কোনও পদক্ষেপ এড়াতে চলতি বছরের ৩১ ডিসেম্বর বা তার আগে তাদের লাইসেন্স নবায়ন করার আহ্বান জানান।

এদিকে, হামজাহ বলেছেন যে নিরাপ’ত্তা র’ক্ষীদের মৌলিক প্রশিক্ষণ গ্রহণ করতে সক্ষ’ম করার জন্য মন্ত্রণালয় একটি সুরক্ষা পরিষেবা শিল্প প্রশিক্ষণ একাডেমি প্রতিষ্ঠা করবে। এতে সহযোগিতা করবে একাডেমি পুলিশ, পিপলস ভলান্টিয়ার কর্পস (রেলা) এবং অভিবাসন বিভাগ। দেশটিতে একক ভাবে নেপালিদের সিকিউরিটি গা’র্ডের চাকরির অবসান ঘটিয়ে বাংলাদেশিদের কাজের সুযোগ সৃষ্টি হলে নতুন দিগন্তের সূচনা হবে বলে মন্তব্য করেছেন দেশটিতে অবস্থানরত বাংলাদেশীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *