Tue. May 24th, 2022

 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হিরো আলমকে নিয়েও কথা বলতে ছাড়েননি ডা. মুরাদ হাসান। তিনি নাকি এক অনুষ্ঠানে হিরো আলমকে তার সামনে গান গাওয়ার ধৃষ্টতা না দেখাতে ধমক দিয়েছিলেন। সম্প্রতি তার সেই বক্তব্য ভাইরাল হয়েছে।

অভিনেতা ও উপস্থাপক শাহরিয়ার নাজিম জয়কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে মুরাদ হাসান বলেন, ‌‌হিরো আলমেরও নিশ্চয় দর্শকশ্রোতা আছে। এ কারণেই হয়তো ওকে ইউটিউবে, বিভিন্ন গণমাধ্যমে দেখা যায়।

হিরো আলম একদিন একটি অনুষ্ঠানে এসেছিল, আমি জায়গাটার নাম না-ই বললাম। সে আমার সামনে গান গাচ্ছিল। আমাকে ঠিকমতো চিনতে পারে নাই। গান শেষে আমি বললাম, ‘তোমার কী কোনো লজ্জা শরম নাই? তুমি যে গান গাইতে পারো না… গান গাইতে হলে সুর, তাল, লয় লাগবে, কণ্ঠও লাগবে।

তোমার চেহারা এবং কণ্ঠ এত সুন্দর (!) আমার সামনে গান গাওয়ার যে ধৃষ্টতা তুমি দেখাইলা… সেটা আমাদের সামনে না দেখাইয়া… যে নিম্নশ্রেণির মানুষরা তোমাকে দেখে…. ওদের সামনে যায়া গান গাইবা।’ উল্লেখ্য, অশ্লীল ও কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য দিয়ে ডা. মুরাদ হাসান সম্প্রতি তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রীর পদ হারিয়েছেন।

গত মঙ্গলবার বিকেলে পদত্যাগপত্র জমা দেন ডা. মুরাদ হাসান। মঙ্গলবার রাতেই প্রতিমন্ত্রীর পদ থেকে ডা. মো. মুরাদ হাসানের পদত্যাগের পত্র গ্রহণ করেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। ওই রাতেই মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে প্রজ্ঞাপন জারি হয়। পরে তা গেজেট আকারে প্রকাশিত হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.