Wed. Jan 26th, 2022

 

সবাই বলছে সব দিক থেকে পালানোর রাস্তা বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। আমি আসলে এমনটা মনে করি না, গুটি বা বল এখনো অত্যাচারীদের কোটেই আছে, সকালে মুরাদ হাসান এর আগমনের প্রতিবাদে বিমানবন্দরে প্রতিবাদটুকু করতে গেলে পুলিশ ফোন কেড় নেয়, ফেস্টুন কেড়ে নেয়। এখন পর্যন্ত অত্যাচারী এই সংগঠনে পদ পেলে সবাই গর্বিত হয়।

এমনকি যাদের আওয়ামীলীগে এলার্জি, তারাও গর্ব করে বলে আমার চাচা শ্বশুর উমুক ইউনিয়নের সভাপতি। এসব প্রতিষ্ঠার বিরুদ্ধে কিভাবে আপনি সংগ্রামটা জারি রাখবেন, সেটায় একটা প্রশ্ন হয়ে উঠেছে। এখন পর্যন্ত নাগরিকদের আমরা সত্য বলার জণ্য উপযুক্ত করে তুলতে পারি নাই। নাগরিকরা প্রফাইলে মিনিমাম প্রতিক্রিয়া জানাবার সাহস রাখে না।

গত কয়েকদিনে আমার প্রবাসী ভাইয়েরা আমাকে অনুরোধ জানাচ্ছিল, আমি যেন বিমানের বর্ধিত ভাড়া নিয়ে কথা বলি, কিন্তু তাদের প্রফাইলে গিয়ে দেখি তারায় এ বিষয়ে কোন আবেদন জানাই নাই। বেশির ভাগের প্রফাইল তালা দেয়া, কিছুই বুঝা যায় না। এই রকম দুর্বল চিত্তের নাগরিক নিয়ে কিভাবে আমরা পোস্ট করি, পালাবার পথ খুজে পাবে না।

অথচ আমাকে দিনে ২০০ প্লাস কল রিসিভ করতে হচ্ছে , তারা সবাই কোন না কোন অভিযোগ নিয়ে কল দেয়। আবার অভিযোগ ছাড়াও কল দিয়ে ভালোবাসা জানাই। গতকাল হতে একজন ৯ বার কল দিয়ে আমার খোজ খবর নিছে। সে আমাকে উৎসাহ দেয়, আরো জোড় প্রতিবাদ অব্যাহত রাখার আবেদন জানায়। তার ফেসবুক আইডির লিংক আমাকে দিলে, দেখি নাম “সুখ পাখি”।

এই দেশ অনেক আগেই মুক্তিযোদ্ধাদের হাত ছাড়া হয়ে গেছে, মুক্তিযুদ্ধ নামের হাড় ভিজায়ে নিহারী বেচতেছে চেতনাবাজেরা। অথচ মুজিব কোর্টে যে ৬ টা বোতাম থাকে, এটা চেতনাবাজেরা না জেনে ৫ টা বোতাম দিয়ে কোর্ট বানায়। আপনারা বলছেন, পালাবার পথ খুজে পাবে না ওরা, ওরা পালাবে কেন? মুরাদ কেন পালাবে?

মুরাদ এই দেশ ছাড়া কোথাও নিরাপদে ঘুমাতে পারবে না। কয়েকদিন আগেও সে, বিদেশ গেছিল। আবার ফিরে এসেছে, আবার সমালোচনার মুখে বিদেশ গেল ভি চিহ্ন দেখিয়ে। এদের পালানোর মত কিছুই হয় নাই, এরা নিজেদের রক্ষা করার মত যে পরিমান আখের গুছিয়েছে, লুটপাট করে; ৫০ বছরেও তা শেষ হবে বা।

রুপকল্প ৪১ এর নাম শেখ হাসিনা অহেতুক বলে নাই। এটা রাজতন্ত্র বাস্তবায়নের ৪১ যেখানে সুশাসন, ন্যায় বিচার শব্দের অর্থ হবে আপনি কতটা রাজার প্রতি আনুগত্য প্রকাশ করতে পারেন। লিখেছেন মোঃ তারেক রহমান

Leave a Reply

Your email address will not be published.