Sat. May 28th, 2022

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর করোনায় আক্রান্ত ছিলেন। করোনা থেকে মুক্ত হয়ে আজ গণমাধ্যমে তিনি বিএনপির লবিস্ট নিয়োগ প্রসঙ্গে কথা বলেছেন। কথা বলতে গিয়ে তিনি নিজেই হোঁচট এবং ধরা খেলেন। লবিস্ট নিয়োগ প্রসঙ্গে ৫ মিনিটের মধ্যেই তিনি দুই রকম বক্তব্য দেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সংবাদ সম্মেলনের শেষ পর্যায়ে একজন সাংবাদিকের করা প্রশ্নের উত্তরে বলেন, আমরা লবিস্ট নিয়োগ করি দেশের স্বার্থে, গণতন্ত্র রক্ষার জন্য, মানবাধিকার রক্ষার জন্য, দুর্বৃত্তের হাত থেকে দেশকে রক্ষার জন্য। এই বক্তব্যের পরই মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর চলে যান।

কিন্তু একটু পরেই তিনি আবার ফিরে এসে বলেন, বিএনপি কোন লবিস্ট নিয়োগ করেনি। বিএনপি গণতন্ত্র এবং দেশ রক্ষার জন্য নিজেরাই কাজ করছে। হঠাৎ তিনি দুই রকম বক্তব্য কেন দিলেন এ নিয়ে বিএনপির মধ্যে তোলপাড় চলছে। জানা যায়, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর যখন এই বক্তৃতা দেন তখন তিনি বুঝতে পারেননি যে লবিস্ট নিয়োগের বিষয়টি বললে কি পরিণতি হবে।

কিছুক্ষণ পরে যখন তিনি বুঝতে পারেন যে এর ফলে তিনি তারেকের গাত্রদাহের কারণ হবেন তখন তিনি ফিরে এসে শেষ বক্তব্যটি দেন। তাঁর এই দুই ধরণের বক্তব্য এবং হোঁচট খাওয়া বিএনপিতেই কৌতুকের জন্ম দিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.